Mon. Oct 3rd, 2022

কয়রায় ভেড়ীবাধ ভেঙ্গে নয় গ্রাম প্লাবিত

মোক্তার হোসেন। কয়রা খুলনা প্রতিনিধি।১৬ আগস্ট। মঙ্গলবার।আবহাওয়ার বৈরী প্রভাবে খুলনার কয়রা উপজেলার দক্ষিণ বেদকাশী ইউনিয়নের চরামুখা নামক স্থানে পানি উন্নয়ন বোর্ডের বেড়ীবাঁধ ভেঙ্গে কপোতাক্ষের পানিতে দক্ষিণ-বেদকাশি ইউনিয়নের চরামুখা মেদের চর, হলুদ বুনিয়া, পদ্মপুকুর,ঘড়িলাল বীনা পানি,পাতাখালিসহ নয়টি গ্রাম প্লাবিত হয়েছে।লোনা পানিতে তলিয়ে গেছে ঘরবাড়ি রাস্তাঘাট মৎস্য ঘের ফসলি জমি। বিশুদ্ধ পানির অভাবে ভুকছেন প্লাবিত এলাকার মানুষ। প্লাবিত মানুষ আশ্রয় নিয়েছে সাইক্লোন সেন্টার ও পার্শ্ববর্তী গ্রামের আত্মীয় স্বজনের বাড়িতে।সেখানকার বাসিন্দারা জানান, নিম্নচাপের প্রভাবে নদীতে জোয়ারের পানি বৃদ্ধি পেয়ে রাতের জোয়ারে দক্ষিণ বেদকাশি ইউনিয়নের পানি উন্নয়ন বোর্ডের ১৪/০১ পোল্ডারের চরামুখা নামক স্থানের বেড়িবাঁধ ভেঙ্গে পুনরায় নয়টি গ্রাম প্লাবিত হয়েছে। পানিবন্দি হয়ে পড়েছে প্রায় ১৮ হাজার মানুষ ১৫ আগস্ট সোমবার সকাল থেকে দক্ষিণ বেদকাশী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আছের আলীর নেতৃত্বে স্বেচ্ছাশ্রমে প্রায় তিন হাজার মানুষ ভেঙ্গে যাওয়া বেড়িবাঁধটি আটকাতে ব্যর্থ হয়। দুপুরের প্রবাল জোয়ারের চাপে পুনরায় আবার ভেঙ্গে গোটা এলাকা প্লাবিত হয়েছে। চরমুখা গ্রামের বাসিন্দা সাবেক সদস্য মাসুদ রানা বলেন ভেঙ্গে যাওয়া এই স্থানটি অনেক আগে থেকেই হুমকিতে ছিল গত জুন মাসের ১৭ তারিখে উক্ত স্থান ভেঙ্গে দক্ষিণ বেদকাশী ইউনিয়ন প্লাবিত হয় ।গ্রামবাসীর দুই দিনের প্রচেষ্টায় স্বেচ্ছাশ্রমের ভিত্তিতে রিং বাঁধ দিয়ে বেড়িবাঁধটি পানি আটকাতে সক্ষম হলেও পানি উন্নয়ন বোর্ডের উদাসীনতায় দীর্ঘ দুই মাসেও স্পর্শকাতর রিং বাঁধটি মেরামত না করায় প্রথমে ১৩ আগস্ট দুপুরের জোয়ারে ভেঙ্গে ইউনিয়টি প্লাবিত হয়। বর্তমানে মানুষের মাঝে আতঙ্ক বিরাজ করছে। সমগ্র কয়রা উপজেলা লবণ পানিতে নিমজ্জিত হয়ে পড়তে পারে বলে ধারণা করছেন এলাকাবাসী।উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জনাব অনিমেষ বিশ্বাস বলেন, কপোতাক্ষের নদীর পানি বৃদ্ধি পাওয়ায়  দক্ষিণ-বেদকাশি ইউনিয়ন প্লাবিত হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের মাঝে শুকনো খাবার বিতরণের জন্য ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের কাছে চাল, ডাল ,তেল চিড়া মুড়ি ও শুকনো খাবার দেওয়া হয়েছে।সাতক্ষীরা পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মোহাম্মদ শাহনেওয়াজ তালুকদার বলেন ভেঙ্গে যাওয়া বাঁধ মেরামত অব্যাহত আছে ।আগামী দিন ইনশাল্লাহ বাধা সম্ভব হবে। তিনি আরো বলেন ফোল্ডারের আরো কয়েকটি ঝুঁকিপূর্ণ স্হান জোয়ারের পানি কমলে পর্যায়ক্রমে মেরামত করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

উপদেষ্টা মন্ডলীঃমোঃ দেলোয়ার হোসেন খাঁন(হিউম্যান রাইটস ওয়াচ ট্রাস্ট অব বাংলাদেশ,প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান)
ডঃ দিলিপ কুমার দাস চৌঃ ( অ্যাডভোকেট,সুপ্রিম কোর্ট ঢাকা)
সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতিঃ অ্যাডভোকেট সাজ্জাদুর রহমান চৌধুরী ।।আইন সম্পাদকঃ অ্যাডভোকেট আবু সালেহ চৌধুরী।।
সম্পাদক ও প্রকাশক: মো: আজির উদ্দিন (সেলিম)
নির্বাহী সম্পাদক: দিলুয়ার হোসেন।। ব্যবস্থাপনা সম্পাদক: মোছাঃ হেপি বেগম ।I বার্তা সম্পাদক: মোঃ ছাদিকুর রহমান (তানভীর)
প্রধান কার্যালয় ২/২৫, ইস্টার্ণ প্লাজা,৩য়-তলা ,আম্বরখানা সিলেট-৩১০০।
+8801712-783194 dailyhumanrightsnews24@gmail.com